শুভ বসন্ত পঞ্চমী

প্রতিবারের ন্যায় গতকাল ছিল বিদ্যা আরাধনার দিন , মানে সরস্বতী পূজা। বছরের এই দিন টি বেশ মজার। অদ্ভুত ভাবে বয়সের ক্রমবিকাশের সাথে সাথে পরিবর্তিত হতে থাকে এর সংজ্ঞা। মনে পড়ে ছোটবেলা সেই কোন ভোরে লেপের আলস্যি ত্যাগ করে সর্ষে হলুদ বাটা গায়ে মেখে স্নানান্তে পুরোহিত মশাইর আগমন , পূজা , প্রসাদ বিতরণ। তারপর স্কুলে যাওয়া। […]

share

আরো নিচে নেমে

আরো নিচে নেমে, -নিচে নেমে, – নেমে, ওরা এসেছিলো , আমার পাশের গাছ টা কে আর্থ মুভার দিয়ে পিশে গুঁড়িয়ে দিয়েছে। গুঁড়ি টুকুও রাখেনি। প্রথমে মেশিন দিয়ে ফেলে তারপর দুজন লোক সারাদিন ধরে ধাড়ালো কুড়ুলের কোপ মেরে মেরে শেষ করে দিয়েছে তাকে। হাতের কড়া পড়া চামড়া উঠে গেলেও তারা কোপ মেরে গ্যাছে। তাদের শান দেয়া […]

share

আসি বন্ধু আবার দেখা হবে !

“কৃষ্ণ বল , সঙ্গে চলো ” নামাঙ্কিত একটি অটোতে রোমাঞ্চকর ভাবে চড়িলাম। কিছুদুর যাইবার পরই বিপত্তি। ঘট্ ঘট্ শব্দ – দাড়াইয়া পরিল। অগত্যা নামিয়া বাস এর অপেক্ষায় দাড়াইলাম , চালক ঠেলিয়া অটো টি লইয়া গেল। -পিছনে কহিতেছে – “আসি বন্ধু আবার দেখা হবে ।” – আমি এইরূপ বিভীষণ রুপি সক্ষতা চাইনা । RongpencilA blogger in search […]

share

হস্তশিল্প

সম্প্রতি হস্তশিল্প মেলায় গিয়াছিলাম – প্রচুর লোক – আঠেরো থেকে পচিশ এইজ প্রাধান্য – এক পঞ্চাষর্ধ ব্যক্তিকে দেখিলাম রোজ দেখা সহধর্মিনীর মুখকে নবরূপে খুজিবার তরে ফট করিয়া স্মার্ত্ ফোন তুলিয়া সলজ্জ ভঙ্গিমায় কহিতেছেন ” এই শোন , এদিকে তাকাও ” – পুত্র কোলে থাকায় আমি ভাবিয়াছিলাম আমায় বললেন তাই চোখ পরিয়া ছিল – দশাসোহী শ্রীমতি […]

share

অলকানন্দা আর রঞ্জন

অলকানন্দা আর রঞ্জন – দুজনের সাক্ষাত কলেজের খাতার ট্রায়াল ব্যালান্স মেলাতে মেলাতে – সূত্রপাত সেখানেই , তারপর কিছু হারানো কিছু পাওয়া , কিছু চেনা মানুষের অচেনা হয়ে যাওয়া , আবার অনেক অচেনা মানুষকে চিনে নেবার মধ্যে দিয়ে সময় নদীর জল গড়িয়ে গেছে অনেক দুরে। আজ তারা থাকে পৃথিবীর দুই কোনে। একজন সিঙ্গাপুর অন্যজন স্যান ফ্রান্সিসকো। […]

share

বন্ধুত্ব দীর্ঘজীবি হোক

পার্কের মাঠের পাহাড়াদার এর ঘড়ি টা বড্ড বেয়াড়া। গরম কালের সময় সাড়ে তিনটে থেকে সাড়ে পাঁচটা। রক্তে আমার এখন ভরা জোয়ার। সারাদিন বন্ধ ঘরের ঘেরাটোপ পেরিয়ে একটু প্রানপনে নিশ্বাস নেওয়া , সমবয়সী দের সান্নিধ্য , আলাপচারিতা। থুড়ি বুলি না ফুটলেও ইশারায় কাজ সারা। কিন্তু এর মাঝেও বাঁধ সাধা। পাঁচটা কুড়ি পড়লো প্রথম ঘন্টি। – আমি […]

share

হাতি

ছোট্টবেলার গল্পগুলোর মধ্যে সবথেকে ইন্টারেষ্টিং আর কনফিউসিং প্রাণী চরিত্র হলো – হাতি। শুনেছি তার বিশালাকার অবয়ব কিন্তু তার মনের নমনীয়তা বা বাত্সল্য প্রেমের সাথে সামঞ্জস্যহীন। সেই এক দ্বিধার ছাপ পাই আমার পরবর্তী প্রজন্মের চক্ষেও। পার্কের মাঝামাঝি স্থিত এই জায়গান্তিক এনিম্যাল কে দেখে অনেক তাবর তাবর বাচ্চাদের দেখেছি একটু হলেও ভরকে যেতে। সে অবশ্যি বিন্দুমাত্র বিচলিত […]

share

ঘুম

বাইরে চৈত্রর দাবদাহ – ঘরের ভেতরও তার অনায়াস প্রকোপ। উষ্ণ হাওয়ায় পাক খেয়ে খেয়ে উড়ছে শুকনো ঘাস , ধুলিকনা। ঘরের ভেতর পাখা চলছে পুরোদমে। কিন্তু কোথাও তার শীতলতার আঁচ পাচ্ছিনা। তার মধ্যেই পর্দার আড়াল করে আলো আধারি তুলনামূলক শীতল ঘরে পুত্র ডুব দিয়েছে তার স্বপ্নে র জগতে। ঘরের মাঝখান দিয়ে একটা কমলা রঙের ফুটবল পাখার […]

share